লালবাগ কেল্লার দেয়ালের একাংশ ভেঙ্গে কার পার্কিং হচ্ছে!

প্রকাশ: June 27, 2015
Lalbag-kella

লালবাগ কেল্লার মজবুত দেয়ালের এক অংশ ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে পার্কিং নির্মাণের অজুহাতে। ২৬/০৬/২০১৫ তারিখের দৈনিক জনকন্ঠে এই নিয়ে প্রকাশিত খবরটি আমরা ঢাকার পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হল-

মুঘল আমলের ঐতিহাসিক স্থাপনা অনন্য স্থাপত্যশৈলীর নিদর্শন লালবাগ কেল্লার মজবুত দেয়ালের এক অংশ ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে। পার্কিং নির্মাণের মতো হঠাৎ আমদানি করা অদ্ভুত কারণ দেখিয়ে বৃহস্পতিবার এই দেয়াল ধ্বংসের কাজ করে খোদ প্রতœতত্ত্ব অধিদফতর।

বিকেলে সেখানে গিয়ে দেখা যায়, মসজিদের পার্শ্ববর্তী সীমানা প্রাচীরের অংশবিশেষ হাতুড়ি পিটিয়ে ভেঙ্গে ফেলা হয়েছে। চলছে ভিআইপিদের কার পার্কিংয়ের সুবিধা করে দেয়ার প্রস্তুতি। দেয়াল ছাড়াও বিনষ্ট করা হচ্ছে সুন্দর বাগান। কেল্লা সংরক্ষণের কাজে অর্থ বরাদ্দ অপ্রতুল হলেও, ২৫ লাখ টাকা ব্যয়ে চলছে বিনষ্টের কাজ। জানা যায়, মুঘল আমল থেকেই মসজিদের পার্শ্ববর্তী এ জায়গায় জুমার নামাজ, তারাবি, ঈদের জামাতসহ ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠান হতো। কিন্তু এখন মূল নক্সা উপেক্ষা করে এখানে নির্মাণ করা হচ্ছে বেমানান কার পার্কিং। ১৯৬৮ পুরাকীর্তি আইনেরও এটি পরিপন্থী। লালবাগ কেল্লার কাস্টডিয়ান জানান, বিশেষ কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী পার্কিং নির্মাণের কাজ হচ্ছে। তবে বক্তব্যের সপক্ষে তিনি বৈধ কোন কাগজপত্র দেখাতে পারেননি।

এদিকে লালবাগ কেল্লার সীমানা প্রাচীর ভাঙ্গার খবর পেয়ে সেখানে ছুটে যান পরিবেশবাদী সংগঠনের কর্মীরা। সকালে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা), প্রত্যাশা, গ্রীন মাইন্ড সোসাইটি, ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ ট্রাস্টসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা জায়গাটি পরিদর্শন করেন। পরিদর্শক দলে ছিলেনÑ প্রত্যাশার সাধারণ সম্পাদক হেলাল আহমেদ, গ্রীন মাইন্ড সোসাইটির মহাসচিব আমির হোসেন, আইনজীবী ও নীতিবিশ্লেষক সৈয়দ মাহবুবুল আলম, ওয়ার্ক ফর এ বেটার বাংলাদেশ ট্রাস্টের ন্যাশনাল এ্যাডভোকেসি অফিসার মারুফ হোসেন, সিনিয়র প্রকল্প কর্মকর্তা নাজনীন কবীর, সমাজসেবক এ কে এম সিরাজুল ইসলাম, নজরুল ইসলাম, মোঃ সেলিম প্রমুখ। এ সময় ৩০০ বছরের পুরনো প্রাচীর ভেঙ্গে কেল্লার ভেতরে পার্কিং অবকাঠামো নির্মাণের প্রতিবাদ জানিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন তারা।
পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলনের চেয়ারম্যান আবু নাসের খান বলেন, উন্নয়ন কর্মকা-ের নামে যা করা হচ্ছে তা লালবাগ কেল্লার মূল নক্সার পরিপন্থী। কতিপয় স্বার্থান্বেষী মহল তাদের স্বার্থ সিদ্ধির জন্য এ দেশের তথা পুরান ঢাকার ঐতিহ্যবাহী মুঘল স্থাপনাটি নিয়ে নানা ষড়যন্ত্রে মেতে উঠেছে। কেল্লার ভেতরে গড়ে তোলা হচ্ছে বেমানান এই কার পার্কিং। সম্পূর্ণ ব্যবসায়িক উদ্দেশে প্রভাবশালী মহলের প্ররোচনায় গাড়ি পার্কিং গড়ে তোলার কাজ চলছে। তিনি বলেন, সারা দুনিয়াতে প্রত্নতত্ত্ব সম্পদ সংরক্ষণে মূল নক্সাকেই সর্বোচ্চ প্রাধান্য দেয়া হয়। সেখানে লালবাগের কেল্লার মতো মূল্যবান স্থাপনা বিনিষ্ট করে গাড়ি পার্কিং নির্মাণ দুঃখজনক। এই পার্কিং তৈরি করা হলে কেল্লার মূল নক্সার পরিবর্তন ঘটবে। ঐতিহ্য রক্ষার স্বার্থে অবিলম্বে পার্কিং নির্মাণ কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণার দাবি জানান প্রতিনিধি দলের সদস্যরা। যারা পরিকল্পিতভাবে লালবাগ কেল্লা বিনিষ্টের সঙ্গে জড়িত সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে তাদের শাস্তির আওতায় আনার দাবি জানানো হয়। অযতœ, অবহেলা আর দখলদারদের কারণে মুঘল আমলের এই দুর্গ ঐতিহ্য হারাচ্ছে জানিয়ে সেদিকে নজর দেয়ার আহ্বান জানান পরিবেশবাদীরা।

তবে এ ব্যাপারে প্রতœতত্ত্ব অধিদফতরের মহাপরিচালকের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি।

সূত্র: দৈনিক জনকন্ঠ

You must be logged in to post a comment Login

মন্তব্য করুন